৩০ সেকেন্ডেই মোটরসাইকেল গায়েব

1 month ago 24

উদ্ধার করা মোটরসাইকেলসহ অন্যান্য সরঞ্জাম

উদ্ধার করা মোটরসাইকেলসহ অন্যান্য সরঞ্জাম

চট্টগ্রামে অভিযান চালিয়ে মোটরসাইকেল চোর চক্রের ৯ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় ২০টি চোরাই মোটরসাইকেলসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।

শনিবার গ্রেফতারের বিষয়টি পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়। এর আগে, নগরী ও বিভিন্ন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- মিল্টন সরকার, মেহেদী হাসান, মাহমুদুল হাসান, আনোয়ারুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম রিপন, মো. ওবায়দুল কাদের, মো. শাখাওয়াত হোসেন ওরফে রুবেল হোসেন, শাহাদাত হোসেন সাজ্জাদ ও মো. রিয়াজ।

পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার রাতে কোতোয়ালি থানার আটমার্চিং কদমতলী মোড় এলাকা থেকে নম্বরবিহীন একটি মোটরসাইকেলসহ মিল্টন সরকার ও মেহেদী হাসানকে গ্রেফতার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানান- দুজনই মোটরসাইকেল চোর চক্রের সদস্য। মোটরসাইকেল চুরির পর সেগুলো বিভিন্ন স্থানে নিয়ে বিক্রি করেন তারা। পরে তাদের দেয়া তথ্যমতে চট্টগ্রামের বিভিন্ন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে চক্রের আরো সাত সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়।

অভিযানে আরো ১৯টি মোটরসাইকেলসহ ১৮টি ডিজিটাল নম্বর প্লেট, ৮টি ইঞ্জিন লক (গেডিলক), ২৬টি সিটলক, ৪টি অয়েল ট্যাংক লক, একটি হাইড্রোলিক লক ও ৪৫টি বিভিন্ন ধরনের তালার চাবি উদ্ধার করা হয়।

কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ নেজাম উদ্দিন বলেন, মূলত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, ব্যাংকসহ বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠান থাকে তাদের টার্গেট। কোনো স্থানে মোটরসাইকেল রাখার পর চক্রের একজন মালিকের পিছু নেন, আরেকজন তালা ভেঙে গাড়িটি চুরি করে নিয়ে যান। এ কাজ করতে তাদের সময় লাগে মাত্র ৩০ থেকে ৪০ সেকেন্ড।

ওসি আরো বলেন, খাগড়াছড়ি, ভূজপুর, মিরসরাই, কুমিল্লা, ভৈরব, বরিশাল, কক্সবাজারসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে চক্রটি সক্রিয় রয়েছে। গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলা রয়েছে।

Read Entire Article