‘শেখ হাসিনার জন্য দেশের মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারে’

1 month ago 28

২৩ বঙ্গবন্ধু এভিনিউ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপকালে দেশব্যাপী স্বাধীনতাবিরোধীদের ধ্বংসাত্নাক তাণ্ডবের প্রতিবাদে আয়োজিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ

২৩ বঙ্গবন্ধু এভিনিউ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপকালে দেশব্যাপী স্বাধীনতাবিরোধীদের ধ্বংসাত্নাক তাণ্ডবের প্রতিবাদে আয়োজিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ

আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ বলেছেন, শেখ হাসিনা মানুষের পাশে থেকে জীবন বাজি রেখে দেশের জন্য রাজনীতি করেন। তিনি আছেন বলেই বাংলাদেশের মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারে।

শনিবার ২৩ বঙ্গবন্ধু এভিনিউ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপকালে দেশব্যাপী স্বাধীনতাবিরোধীদের ধ্বংসাত্নাক তাণ্ডবের প্রতিবাদে আয়োজিত সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন। 

নির্মল রঞ্জন গুহ বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা আছেন বলেই বাংলাদেশের মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারে। শেখ হাসিনার হাতে দেশ পরিচালনার দায়িত্ব আছেন বলেই বাংলাদেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন হয়েছে। বিশ্বের কাছেও বাংলাদেশ মর্যাদায় আসীন হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, মানুষ ও ধর্মের জন্য যারা রাজনীতি করে তারা কখনো দেশের মানুষের ক্ষতি করতে পারে না। ধর্মের নামে অপশক্তিতে রূপ নিয়েছে এমন কোনো দল বাংলাদেশে রাজনীতি করতে পারবে না। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্বেচ্ছাসেবকলীগ মাঠে আছে। যারা দেশের মধ্যে অস্থিতিশীল পরিস্থিতিতে সৃষ্টি করতে চায় তাদের প্রতিহত করা হবে। হরতালের নামে যদি কোনো অরাজকতা সৃষ্টি করা হয় তাহলে স্বেচ্ছাসেবকলীগের নেতাকর্মী মাঠে থেকে দাত ভাঙা জবাব দেবে। বিএনপি-জামায়াতের আগামীকালের হরতাল প্রতিরোধ করতে সারাদেশে বিকেল তিনটায় সমাবেশ করার ঘোষণা করছি। 

স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু বলেন, বঙ্গবন্ধু নেতৃত্বে দেশ স্বাধীন হয়েছে। সেই স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী যখন পালন করা হচ্ছে তখন মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি দেশের মধ্যে আবারো ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। বিএনপি স্বাধীনতার পরাজিত শক্তি মূল মদদপুষ্ট ।  

তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর উদযাপনের বছরে বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। দেশের জনগণ ভালো থাকুক বিশ্বের কাছে মাথা উঁচু করে মর্যাদা নিয়ে বাঁচুক একটি দল চায় না। তারা দেশের মধ্যে অস্থিতিশীল পরিস্থিতিতে সৃষ্টি করে পাকিস্তানের ভাবধারা কায়েম করতে চায়।

সমাবেশ শেষে স্বেচ্ছাসেবকলীগের নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ মিছিল করে। মিছিলটি বঙ্গবন্ধু এভিনিউ থেকে শুরু হয়ে জাতীয় স্টেডিয়াম বায়তুল মোকাররম ও জিপিও হয়ে মিছিলটি শেষ হয়। বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশে মহানগর  দক্ষিণের বিভিন্ন ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবক লীগের শতশত নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

Read Entire Article