জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনে সাতগুণ ফি নিচ্ছেন ইউপি সচিব 

2 weeks ago 15

টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার যাদবপুর ইউনিয়ন পরিষদ সচিব মোক্তার হোসেনের বিরুদ্ধে সরকারি বিধির বাইরে জন্মনিবন্ধনে অতিরিক্ত সাতগুণ টাকা নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। এর প্রতিকার চেয়ে ওই সচিবের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ভুক্তভোগী বোয়ালী গ্রামের মোহাম্মদ মাসুম।

জানা যায়, সর্বশেষ সরকারি বিধি মোতাবেক প্রতিটি জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধনের ক্ষেত্রে শূন্য থেকে ৪৫দিন বয়স পর্যন্ত সম্পূর্ণ ফ্রি, ৫ বছর বয়স পর্যন্ত ২৫ টাকা এবং ১০ বছরের পর থেকে ৫০ টাকা নির্ধারণ করা আছে।

অভিযোগে জানা যায়, তবে সরকার নির্ধারিত ফি’র পরিবর্তে যাদবপুর ইউনিয়ন পরিষদ সচিব মোক্তার হোসেন প্রতিটি জন্মনিবন্ধনে ২০০ থেকে ৩০০টাকা করে নিচ্ছেন। এর বিপরীতে গ্রাহকরা রশিদ চাইলে রশিদ লাগবে না বলে টালবাহানা করছেন। ওই ভুক্তভোগী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে এর সুষ্ঠু তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ জানান।

জন্ম ও মৃত্যু সনদ নিতে আসা অন্যান্যরাও সরকার নির্ধারিত ফি এর সাতগুণ টাকা নেয়া হয়েছে বলে জানান।

জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধনে ৩০০ টাকা পর্যন্ত নেয়ার কথা স্বীকার করেছেন যাদবপুর ইউনিয়নের সচিব মুক্তার হোসেন। প্রতিটি নিবন্ধনে অতিরিক্ত টাকা আদায়ে অফিসিয়াল নানা খরচের তালিকাও তুলে ধরেন।

যাদবপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান একেএম আতিকুর রহমান আতোয়ার বলেন, অতিরিক্ত টাকা না নেয়ার বিষয়ে সচিবকে বারবার অনুরোধ করা হলেও তিনি তা মানছেন না।

সখীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা চিত্রা শিকারী বলেন, এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে ওই সচিবের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

View Source